কুমিল্লায় নাশকতার মামলায় খালেদার বিচার চলবে

 
নিজস্ব প্রতিবেদক
কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে বাসে অগ্নিসংযোগে আটজনের মৃত্যুর ঘটনায় খালেদা জিয়াসহ ৭৮ জনের বিরুদ্ধে করা বিস্ফোরক দ্রব্য আইনের মামলাটি বিচার চলবে। এ মামলায় হাইকোর্টের দেওয়া স্থগিতাদেশ স্থগিত করেছেন চেম্বার বিচারপতি।
পাশাপাশি হাইকোর্টের ওই আদেশের বিরুদ্ধে আপিলের অনুমতি চেয়ে রাষ্ট্রপক্ষের করা আবেদন (লিভ টু আপিল) আগামী ২৯ মার্চ শুনানির জন্য আপিলের নিয়মিত বেঞ্চে পাঠানো হয়েছে। ওই ঘটনায় দায়ের করা হত্যা মামলারও আসামি খালেদা জিয়া।
মঙ্গলবার রাষ্ট্রপক্ষের এক আবেদনের শুনানি শেষে চেম্বার বিচারপতি হাসান ফয়েজ সিদ্দিকী এ আদেশ দেন। আদালতে রাষ্ট্রপক্ষে শুনানি করেন অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম। তার সঙ্গে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল বিশ্বজিৎ দেব নাথ।
মামলার বিবরণে জানা যায়, ২০১৫ সালের ৩ ফেব্রুয়ারি কুমিল্লায় যাত্রীবাহী বাস আইকন পরিবহনে ভাঙচুর ও পেট্রোল দিয়ে ৮ জন যাত্রীকে হত্যা ও প্রায় ২৫/২৬ জনকে আহত করা হয়। পরে প্রায় ৫৬ জনকে আসামি করে মামলা দায়ের করা হয়। 
বিশেষ ক্ষমতা আইনের ১৫(৩) ও ২৫(ঘ) ধারায় কুমিল্লার দায়রা জজ ও বিশেষ ট্রাইব্যুনাল-১ এ মামলাটির কার্যক্রম শুরু হয়। এরপর ২০১৭ সালের ২ ফেব্রুয়ারি এ মামলায় বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে আসামি করে মোট ৭৮ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দাখিল করা হয়। অভিযোগপত্রে খালেদা জিয়াকে ৫১ তম আসামি করা হয়।
কিন্তু অভিযোগপত্র দাখিলের পর এ মামলা স্থগিত চেয়ে হাইকোর্টে আবেদন করা হলে ২০১৭ সালের ২৫ অক্টোবর বিচারিক আদালত চলমান মামলাটির ওপর স্থগিতাদেশ দেন। কিন্তু হাইকোর্টের ওই আদেশের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রপক্ষে আবেদন করা হলে চেম্বার আদালত হাইকোর্টের আদেশ স্থগিত করে দেন। এর ফলে কুমিল্লার বিচারিক আদালতে খালেদা জিয়াসহ ৭৮ জনের বিরুদ্ধে মামলার কার্যক্রম চলতে আর কোনও বাধা থাকলো না।

শেয়ার করুন

0 মন্তব্য: