যাত্রীবাহি বাসে ভাইয়ের সামনেই শিশুকে ধর্ষণ

জার্নাল ডেস্ক
উত্তর কলকাতার রাস্তায় থেমে থাকা একটি বিলাসবহুল যাত্রীবাহি বাসে ভাইয়ের সামনেই তিন বছরের এক শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। সোমবার এই ঘটনাটি ঘটে বলে জানিয়েছে কলকাতা পুলিশ। খবর এনডিটিভির।
অভিযুক্ত শেখ মুন্না (৪৫)-কে গ্রেপ্তার করা হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। নির্যাতিত শিশুকে আরজি কর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
এক পুলিশ কর্মকর্তা জানান, 'ধর্ষণের বিষয়টি নিশ্চিত হওয়ার জন্য পরীক্ষার রিপোর্টের অপেক্ষায় আছি আমরা। ঘটনাস্থল থেকে আলামত সংগ্রহ করা হয়েছে। অভিযুক্তকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে।'
হাসপাতালে ভর্তির সময় তার প্রচুর রক্তক্ষরণ হচ্ছিল বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকরা। সরকারি হাসপাতালের একজন জ্যেষ্ঠ চিকিৎসক জানান, সোমবার রাতে তার প্রচুর রক্তক্ষরণ হচ্ছিল। তবে এখন তার অবস্থা কিছুটা ভাল। সে সুস্থ হয়ে উঠবে বলে আমরা আশা করছি।'
সোমবার সন্ধ্যায় ঘটনাটি ঘটে বলে জানিয়েছে ভারতীয় গণমাধ্যম এনডিটিভি। ঘটনাস্থলের কাছেই তার পাঁচ বছর বয়সী ভাইয়ের সঙ্গে খেলছিল শিশুটি। সেসময় অভিযুক্ত মুন্না তাকে চকলেটের লোভ দেখিয়ে বাসের মধ্যে নিয়ে গিয়ে ধর্ষণ করে।
নির্যাতিত শিশুটির ভাই তার বোনকে ছেড়ে দেয়ার জন্য মুন্নাকে অনুরোধ করলেও তাতে কর্ণপাত করেনি অভিযুক্ত। পরে সে ছুটে গিয়ে তার মায়ের কাছে ঘটনাটি জানালে প্রতিবেশীদের সহায়তায় শিশুটিকে উদ্ধার করা হয়। বিক্ষুব্ধ জনতা ঘটনাস্থলে গিয়ে শিশুটিকে উদ্ধার করার পর গণপিটুনী দিয়ে মুন্নাকে পুলিশে সোপর্দ করে।

শেয়ার করুন

0 মন্তব্য: